Free Tips and Trick

August 19, 2017

কিভাবে কোন সমস্যা ছাড়াই আজীবন ফ্রিতে IDM ইউজ করবেন। (All Problem Fixed)

আসসালামু আলাইকুম। আশা করি সবাই ভাল আছেন।
এর আগে আমি একটি পোস্ট করেছিলাম "কিভাবে IDM দিয়ে ইউটিউবের Playlist এর সকল ভিডিও একসাথে ডাউনলোড করবেন"।
ওই পোস্টে অনেকেই কমেন্ট করেছেন, "কিভাবে IDM ফ্রিতে ইউজ করব? কিভাবে Creak Version এর ইরর ম্যাসেজ গুলো তাড়াবো.......... ইত্যাদি"।
তাই আমি আজকে এই পোস্টটি করলাম। এবং এতে আপনার IDM সম্পর্কিত সকল সমস্যা চুকে যাবে।

ধাপ-১
প্রথমে নিচের লিংক থেকে IDM+Creak File (64bit+32bit সহ) একসাথে ডাউনলোড করে নিন। আমি Zip ফাইল করে একসাথে আপলোড করে দিয়েছি এই লিংকটি থেকে আজীবন ডাউনলোড করতে পারবেন।
ধাপ-২
ডাউনলোডের পর Zip ফাইলটি Extract করে নিন। তাহলে একটি ফোল্ডার পাবেন সেখানে সব গুলো ফাইল দেয়া আছে।

ধাপ-৩

আপনার পিসির ইন্টারনেট কানেকশন অফ করুন। এবং যদি এন্টিভাইরাস ইন্সটল করা থাকে তাহলে তা বন্ধ করুন বা সাময়িক ভাবে অফ করুন।
ধাপ-৪
Extract করা ফোল্ডার থেকে IDM সফটওয়ারটি ইন্সটল করুন। ইন্সটল করেই অপেন করবেন না, যদি ওপেন হয়ে যায় তাহলে Exit করে দিন।
ধাপ-৫
আপনার পিসি যত বিট সে অনুযায়ী Extract ফোল্ডার থেকে ক্রেক ফাইল ইনস্টল করুন। ক্রেক ফাইল ইন্সটল আর IDM ইনস্টল একই রকমই। ক্রেক ইন্সটল করলেই কাজ শেষ। এবার নেট কানেকশন আর এন্টিভাইরাস ও অন করতে পারেন। আর আজীবন চালাইতে থাকেন।
(কিভাবে কত বিট দেখবেন, ডেক্সটপ থেকে My Computer এর উপর রাইট ক্লিক করে Properties এ ডুকুন। এখানে সব তথ্য দেয়া আছে।)

এই পদ্ধতিতে আপনার IDM ইউজ করতে কোন সমস্যা হবে না। কোন রকম স্লো স্পিড বা "IDM registered with fake serial code" মেসেজ শো করবে না।
যাদের সমস্যা হচ্ছে বা কোন কিছু বুঝতেছেন না তারা এই ভিডিওটি দেখুন-
সতর্কতাঃ কখনোই IDM আপডেট দিবেন না। আপডেট দিলেই ক্রেক কাজ করবে না! আবার নতুন করে ইনস্টল করতে হবে।
এই কাজগুলো একজন সাধারণ ইউজারের পক্ষে করা খুবেই সহজ তাই বেশি স্কিনশট দেয়ার প্রয়োজন মনে করি নাই।
পিসি এর যেকোনো সমস্যার কথা আমাকে জানাতে পারেন ১০০% সাহায্য চেষ্টা করব। ইউটিউব চ্যানেলে কমেন্টে জানাতে পারেন। বা আমাকে ইমেইল করতে পারেন (firakib1@gmail.com)
ধন্যবাদ।
Share:

August 16, 2017

কিভাবে যেকোনো পাসওয়ার্ড কে লেখায় পরিণত করে দেখবেন?

আসসালামু আলাইকুম। প্রিয় ভাই-বোনেরা আশা করি সবাই ভাল আছেন। আজ আপনাদের জন্য নিয়ে একটি ছোট হ্যাকিং ট্রিক। ছোট ট্রিক বলে কেউ এড়িয়ে যাবেন না, এই ছোট ট্রিক গুলোই একসময় আপনাকে বড় কোন কাজে সাহায্য করতে পারে।
আর অনেকেই এই ট্রিকটা জানেন, যারা জানেননা শুধু তাদের জন্য। আর এটি হ্যাকিং ছাড়াও যেকোন আইডি এর পাসওয়ার্ড ভুলে গেলে যদি কোন ব্রাওজারে সেভ থাকে বের করতে পারবেন।

তো ধরুন আপনার বন্ধু আপনার পিসিতে তার ফেসবুক একাউন্ট লগিন করে চালিয়েছিল। এরপর লগআউট করে রেখে যায় এরপর আপনি দেখলেন তার একাউন্ট সেভ হয়ে আছে, মানে ইমেইল দেখা যাচ্ছে আর পাসওয়ার্ড ডট আকারে দেখাচ্ছে এবার আপনি ইচ্ছা করলেই তার আইডি লগিন করতে পারেন। কিন্তু পাসওয়ার্ড তো দেখতে পারবেন না!!

আমার ট্রিকটি এই পর্যায়েই আপনার কাজে লাগবে কিভাবে এই রকম পাসওয়ার্ড গুলো দেখবেন।
তো ঝটপট নিচের ভিডিওটি দেখে ফেলুন-

How To Convert Password DOTS into TEXT | Basic Hacking Trick

ধন্যবাদ।
Share:

August 14, 2017

কিভাবে IDM দিয়ে ইউটিউবের Playlist এর সকল ভিডিও একসাথে ডাউনলোড করবেন।

আসসালামু আলাইকুম প্রিয়-বোনেরা আশাকরি সবাই ভাল আছেন। প্রতিবারের মতো আজকেও আপনাদের জন্য নিয়ে এলাম ভিন্ন একটি ট্রিক।
আমরা অনেক সময়ই ইউটিউব থেকে প্লেলিস্টের সব গুলো ভিডিও ডাউনলোড করার প্রয়োজন হয়। যেমন একটি কোর্সের সব ভিডিও যদি একটি প্লেলিস্টে থাকে তাহলে কিভাবে সব গুলো একসাথে ডাউনলোড দিবেন? আজকের এই ট্রিকটি এই জন্যই।
তো প্রথমেই আপনার পিসি/ল্যাপটপে IDM (Internet Download Manager) ইনস্টল থাকতে হবে। এরপর আপনি যেকোন ব্রাউজার দিয়ে ইউটিউব এ ডুকে Playlist এর লিংকটি কপি করতে হবে। (এই কাজটি একটু ক্রিটিকাল সবাই খুজে পায় না, তাই নিচের ভিডিও টি দেখবেন)
এরপর "YoutubeMultiDownloader.com" এ গিয়ে প্লেলিস্ট এ ক্লিক করে আপনার লিংকটি পেস্ট করুন। তারপর একটু অপেক্ষা করলে একটি বক্স আসবে সেখানে অনেকগুলো লিংক আসবে এক সাথে সবগুলো একসাথে কপি করে একটি টেক্সট ফাইল তৈরি করে সেইব করে রাখুন। এরপর IDM - Task - Import - Text File - সিলেক্ট করে দিন। এরপর স্টার্টে ক্লিক করুন। সব গুলো ফাইল একটির পর একটি ডাউনলোড শুরু হয়ে যাবে।

উপরের কাজগুলো একটু জটিল (স্কিনশট দিয়ে বুঝানো যায় না) তাই আপনাদের সুবিধার্থে আমি একটি ভিডিও টিউটোরিয়াল দিলাম। এটি দেখলে আপনি কোন জামেলা ছাড়াই ডাউনলোড করতে পারবেন।
https://www.youtube.com/watch?v=kXsTEyE80n0
Share:

August 13, 2017

এবার কেউ পাসওয়ার্ড চেঞ্জ করে দিলেও আপনি ওয়াইফাই চালাতে পারবেন।

আমরা অনেকেই আছি হ্যাক করে বা অন্য কোনভাবে অন্যের ওয়াইফাই চালাই। কিন্তু দেখা যায় কিছুদিন পর তারা পাসওয়ার্ড চেঞ্জ করে পেলে। ফলে আপনার খেল খতম আর চালাতে পারেন না। তো, এই রকম যাদের অবস্তা তাদের জন্য মূলত এই ট্রিকটি।
ওয়াইফাই এর ওনার বা মালিকরা পাসওয়ার্ড চেঞ্জ করলেও পিন কোডটি চেঞ্জ করে না! তারা জানেই না এই পিন কোডটির কাজ কি। ফলে শুধু পাসওয়ার্ড চেঞ্জ করেই তারা নিশ্চিত থাকে কেউ আর তাদের ওয়াইফাই চালাচ্ছে না। তাদের এই অন অবগতিকেই আমরা কাজে লাগাবো এবং আজিবন ওয়াইফাই চালাবো।
এবার মূল বিষয়ে আসি,
আমি পিসি/মোবাইল দুইটা থেকেই দেখাচ্ছি। পিসিতে এই কাজটি করার জন্য আমাদের "Jumpstart" নামের একটি ফ্রি সফটওয়ার ডাউনলোড করতে হবে। এবং মোবাইলের জন্য "WPS Connect" নামে একটি সফটওয়ার ডাউনলোড করতে হবে।
Tools:

  1. Jumpstart
  2. WPS Connect

এরপর আপনার কাঙ্খিত ওয়াইফাই এর এডমিন প্যানেলে লগিন করে MENU - QSS - থেকে পিন কোডটি কপি করে রাখুন।
এবার মালিক যখন পাসওয়ার্ড চেঞ্জ করবে তখন এই সফটওয়ার গুলো অপেন করে নেটওয়ার্ক সার্চ দিন। এবং আপনার কাংখিত ও্যাইফাই সিলেক্ট করে পিন কোডটি দিয়ে কানেক্ট এ ক্লিক করুন। ৫ সেকেন্ড এর ভিতর কানেক্ট হয়ে যাবে।
বিঃদ্রঃ এই ট্রিকটি লিখে বোঝানো খুবেই কষ্টসাধ্য যদি কেউ না পারেন তাহলে দুইটি ভিডিও দিলাম এই ভিডিও দুইটা দেখেন। আশা করি আপনি পারবেনই।
মোবাইল থেকে করলেঃ
https://www.youtube.com/watch?v=pd62gogEDKg
পিসি থেকে করলেঃ
https://www.youtube.com/watch?v=pd62gogEDKg
Share:

August 2, 2017

Love is Most Difficult Thing to Attain

Love is Most Difficult Thing to Attain
Calls of that day:
“hiya,” a voice came.
“good day my buddy. Whom i am talking to?”
“i am Anirudh. i love this lady…” sound of cry emerged in between. “I gave her the entirety, I take care of her. now not for a second I left her aspect. She continually slighted me along with her splendor yet I continued loving her. i have actual godly feelings for her. i am inclined to bestow my soul to her. She is my princess and now after a long adventure of mutual emotions she realizes that i am not proper for her. That i'm a dweeb. now not appropriate for her.”

“Anirudh i am sorry to say but I blame you for this. it's miles all your fault. correct men like you people have actual love to present. What you possess and what you've got given to that lady this is some thing each girl longs for. but your fault is that proper men such as you; you all too like the ones desirable looking uppish scamps yearn for princesses. have you ever concept approximately the ones not so desirable looking, plain sober girls? have you ever ever concept that perhaps they're exact coronary heart? That they too deserve someone like you? NO. nobody thinks approximately them. they are both to be used and throw by way of a few or to make a laugh of. i am no longer pronouncing that look don’t be counted. It positive does but feelings weight greater than appearance. For can we abandon our authentic cherished ones of their deformed kingdom? If we will then we are not in love with the character. we're just in love with ourselves and add others to love us more. I know that you are know-how every word that i am announcing right here for you have just traversed jilting.”

“you are right Meera. you're genuine pal who is never frightened of telling reality for your pals even supposing it's miles painful,” he said.

“well i would now not make this name any lengthier on sermons of truth and ache. For there are other callers too waiting to be cured. You my friend, you need to promise me. That you may fill coronary heart of someone who possess actual love if no longer seems.”
“I promise. i'm able to do that.”
“accurate. Now i can play my favourite song—‘One love’ with the aid of Blue… for you.”

After ending the decision I grew to become around to grab that equal shitty coffee of the studio. And i discovered Raphael standing outdoor our cabin(mine and DJ’s) searching at me thru the giant glass. Why turned into he there? I didn’t hassle to go and ask him for i used to be busy in paintings. I should do that later. work comes first. despite the fact that I liked that he became there.

second caller:
“howdy lover of love, who’s on line?” I sang.
“He went for the model,” without uttering preliminary formality an ached heart found out ache.
“okay… whom i'm talking to?”
No respond for a second
“hello…”-I once more requested
“Trisha.”
“Trisha my friend…”
“Don’t inform me that I should have fun the truth that I had love as soon as in my existence. I don’t want your sermons. I want answer. Why did he left me? I loved him virtually,” she went all at once.
“Why do you want to possess him?” I asked.
“i really like him. We had been in love”
“became it his love too or simply your love?” I asked once more.
No reply came.
“Trisha You have been with him, with your love to your coronary heart. If he could have loved you then you definitely in no way had any need to make this call.”
She cried greatly.
“desirable. cross on cry as lots as you want. tell me when you are achieved,” I waited.
Few moments beyond she amassed herself.
“i'm done now. Meera, inform me what do you have for me?”
“nothing my buddy i'm happy which you were crying like this. You had been letting out your pain. that's darn top; that's the treatment consistent with se. I just need to add right cause for your mourning right here.”
“what's it?” she requested
“it's far better to cry for not having the individual you wished to be with. Than crying after having that person on your life.”
She didn’t said anything and i continued-“love have to be thanked than looking ahead to from it. sense gratitude for one motive of whom you felt love for romance makes you magnanimous. Thank Krishna for originating such indescribable beautiful magic. Or you may go on with wailing; cry till dying. however there’d be no point of doing that. It’d no longer make you any human. It’d make you every other being but now not human. For Human forgives, they pass on,” I attempted to mollify.

“human beings misinform too.”

“He didn’t deceive you he deceived himself. rattling him who dares to break coronary heart full of love. Listener this is going for you all too—in no way breaks the coronary heart that loves you. it is the most rattling component you'll do to your self. Trish my buddy i really like you. My heart is complete of love for you. Please take delivery of my heart”–I constantly presented my heart complete of affection to folks that I discover on the brinks of losing religion in love. cause a few humans aren't supposed to undergo shattering however shattering in no way discriminates. She giggled on my presenting.
“No,” she replied.
“Are you willing to offer me your coronary heart?” I requested.
“i'm immediately”
“i'm instantly too such as you my friend and that i too hit at the enemy.”
She guffawed.
“My buddy lets pay attention a track and inform our enemies that we’ll retain to love them. despite the fact that they smash our hearts. let’s throw challenge on them. hi there all you enemies we are able to maintain to like you–display us how commonly you can break our heart. you could give up however we’ll now not”
“sure, Meera shall we try this.”
“permit’s do that girl. we are able to deliver love. we are right here to present love. we can defeat our enemy with love. My listeners in case you haven’t accomplished this already then do it. pass and specific your love; shower fall of love with out asking anything in return. supply them blows of kisses(of no sound) from far. Which’d remind them your love. inform them which you are letting them go together with heaps and lots of affection. leave your preference of possession. after which possibly you'll witness miracle of love”
“Yeah… permit’s do that. Meera I want you to play a music for the enemy—‘love you till the give up’ by using Pogues’”
“DJ—member of enemy race you heard the gal, don’t you? so prevent searching at me play it…”

That day ended as wonderful in celebrating love as each other day. however that day Raphael stood whole time looking at me. sooner or later I went to him. For I in no way supposed to burden him with guilt or sympathy for me. For i'm a lady who don’t like sympathy.
“never smash the heart that loves you. Did you hear that sir?” I asked.
“I realize.”
“What are you involved for? hi there closing night time I overlook to tell you i've love in my life. i used to be just teasing you”
“genuinely?” he turned as happy as though any individual listen the information that hazard is long gone now.
“sure. i really like myself like nobody can. i really like myself multiple can believe. I admire myself. I fulfill all wishes of myself. I take darn nicely care of myself. and that i make myself satisfied more than I make my callers glad.”

fact from my large captivating eyes soothed him. Thereafter my days with Raphael have been fill with gusto. in preference to I make him snigger now he became searching out my giggle. after I laugh… when i am satisfied… He searched for all that. the person turned into making me feel like woman. He frequently checked out me with surprise. I saw that during his eyes. He in no way said anything. but each day his eyes said some thing that captured my coronary heart. i was rolling on this spell. I felt like sharing the entirety with him. I wanted him to examine me all the times. I wished his eyes to follow me anywhere. At grocery save: at the same time as choosing home articles. At garb shop. At shoe keep. No… no… no longer on the salon but proper after it.
At studio I used to examine him with heart complete of rich substantial feelings, and my eyes attesting that. each day my eyes conveyed this to him. His eyes additionally confirmed the same. We had been silent and emotions were speakme. At home I wasn’t speakme with my different head now as an alternative i was imagining him. as if he become supplied everywhere. i was welling up with strong feelings for him. My days have been filled with Love. the ones were my days of cloud 9 which later changed via…

My Days of Despondence

I slipped to him unbeknownst approximately thorns that have been approaching my direction of love. Lissie arrived–a beautiful Taylor swift sort of lady. She changed into no longer her however she stole my music—‘love tale’. That I regularly performed on my show for Raphael. The track that in no way stopped in my mind for a single 2d. She wasn’t invited with the aid of him however it was due for her to visit. And once they kissed earlier than absolutely everyone which included me too. I heard splintering sound of my desires. A single second made me realize who i used to be? i used to be not anything. How may want to I overlook? i was just an worker. He turned into the owner. I regarded beautiful but I had  heads. and she or he then again become entire; turned into his ideal fit. She was in truth extra gorgeous than Taylor.

That day I got here lower back domestic like alien. i used to be looking at my residence in an unfamiliar manner. I wasn’t in surprise. I woke to reality. I regarded myself deep in the replicate and burst into tears. I went to bed, clutched the pillow and made it wet. I cried until I felt i would die of crying. however then I remembered my pal—Krishna. I went to his big frame image at my residing room. I sat there, didn’t said something. he is omnipresent Lord. He was there in the course of my wailing so there was no want to retell him some thing.

I took off for subsequent day. I by no means needed to reveal my vulnerable country to Raphael. however how could I stand him and Lissie together that was my biggest subject. ‘need to I trade my job? Why ought to I do that? Why ought to I alter my life?’ Such thoughts hovered and haunted me more than the ghosts of Evil lifeless and Exorcist. Swarna came within the afternoon. She took half of day off to see me.

“What are you doing Meera?” first component she asked when I opened the door for her. i used to be nonetheless in my night time wears.
“you are Meera, Goddess of affection. You cannot take a seat dispirited like this,” Swarna continued.
“What about my love?” I requested in depressed tone.
“you are love in keeping with se. how can you forget what granny informed you,” she tried to job my memory.
“She by no means stated that i'm Goddess or Love in keeping with se”
“Oh you have got come to be one, don’t you recognize yourself anymore,” she enquired.

I didn’t recognize what to say. must I cry before her? should I had her see that i am weak. must we do this before our quality friends? i was lost. I couldn’t understand all people. nonetheless I composed myself and advised her that i might be back in my shape tomorrow. i used to be no longer in a kingdom to inform my nation. What must i have instructed to all and sundry? My dream changed into broke. My dream of devoting him godlike love was hit. i used to be body and not using a soul. I had no wish left. My god of love—Raphael with whom I dreamed of feeling God–had now not simplest gone a ways. but it turned into declared that he wasn’t for me.
satisfied moments that I imagined for both people, my desires, all of that broke into tiny prickly pieces. And the worst part turned into that the ones prickly fragments were mendacity inner my heart. I knew how these wounds vanish. They steadily depart through amalgamation in heart in line with se.

Amalgamation is lengthy and darn painful system that’s why humans name love guru like me. but who I should have called? I remembered my friend Krishna however after I beseech him it didn’t felt like i was a bad victim of pain. even though i was in brutal pain yet on remembering Krishna my inner self wanted to call me some thing. Then got here the time once I befell to want doze of my own talent. I loved Krishna but I additionally cherished this guy he created.

i was sinking in Raphael’s love. i used to be off from my music. The flower interior me changed into in deep threat. i used to be scared. however I couldn’t apprehend why i used to be scared. Love changed into making me susceptible. I acted bizarre at times. I played songs for him; now track for Raphael become—‘With you or without you’ of U2. there has been no need to evince him my state. For it become evident by means of my disappearance in his presence.

Relieved From ache

Then there additionally got here the time while my internal self faced me. It told me that i am grasping. For i used to be craving for something that wasn’t mine. It gave me the call that I in no way wanted to give myself–Sinner. i was going for walks blindly for what–Lust or Love—I couldn’t inform. I criticized myself in many ways. What bad that heavenly being Lissie has achieved to me? I have to not think about him becoming mine for that might imply breaking of her heart. How a female can do that to every other lady? i'd by no means do that wrong. not over my lifeless frame. i'm a bonafide who ought to never be compel to do sinful just cause of mere yearnings.

I cried before Krishna I prayed to him earnestly to put off that emotion from me. I also made him swear of my love; entreated him to take me away my pain. I additionally looked at the sermons I had given to my callers. They did no correct to me. despite the fact that they helped me in persevering with my work. Or Darren Mehta should have fired me. No he would in no way do that; he might have given me some other task at the station. And that might be greater worse. therefore I held my fantastic life of dignity and plush with robust fingers. I pursued to restore myself. I emerged assured and strong on Love as usually and that i appeared the prettiest as continually.

At paintings Raphael thoroughly understood my state. however the terrible exact guy changed into tied together with his goodness that he had already dedicated to a person else. He might have concept of having me in his life on seeing me. regrettably he too couldn’t do some thing for the feelings that would have bloomed among us.

Lissie changed into an excellent soul. looking her pretty face wasn’t smooth. every day I struggled with my damaged self. And each day lower back at domestic I advised myself that i'd in no way hate that suitable man or woman lissie.

It took months to traverse hearth and panic assaults. I went out with friends; with unknown people at the bar. Who made plans–in spur of moment–of journey at mountain terrains. I joined them for no motive. i was simplest attempting to find my internal peace inside the global outdoor. although my inner facet became greater barred than earlier than for outdoor world. It ought to were a miracle of Krishna for I cannot tell what exactly happened but I received my peace returned again.

I read many books and articles that deals with devotion for Krishna. In nut shell those sermons didn’t tell me some thing(for i used to be not sane to recognize anything) but they were superb in testifying my sincere devotion for him. I usually believed that my natural devotion and selfless love is enough to make me meet Krishna when I die. and then he'll decide whether he's going to amalgamate me in him or we'd stay in each different’s arm. So scriptures testified my devotion. Krishna additionally informed me in my coronary heart that if I blame myself any in addition. He could take that onto him. hence how self-pitying and hating stopped.

in the end i discovered myself relieved with the pain. despite the fact that I moaned aplenty during direction of ache. however I got here out greater massive individual than i was earlier than my entanglement in love with Raphael Mehta. I commenced to cherish the feeling I had for him. I blessed him. I prayed happiness for him. step by step existence became turning happier like never earlier than. i used to be rising up from attachments. Or what a Guru i'd be if I couldn’t inform my callers that love manner freedom not binding. It need to now not bind everyone nor you neither the character whom you love. I gained new light. I definitely realized that love is giving now not taking.

lower back in tranquility

So whilst the hurricane of my coronary heart surpassed and serenity turned into ebbing and flowing. Mr. Raphael Mehta found this sort of tide perfect for floating. Now that’s why we need to call them enemy when we want them they may be burdened. They couldn’t determine out what to do? And whilst we go away they remorse; they want us then.

One top evening in between of my show Raphael got here in and asked the DJ to play the song–I secretly wished in my coronary heart that he have to sing to me–‘global of Our personal’ by means of Westlife’(how he knew this?-I puzzled)

Why ought to i love him? What did he do to terrible Lissie? nicely, I by no means wished to recognise so I never requested. but why have to i really like him–become the question swirling in mind. I notion I need to love to God handiest for he's the only one who definitely loves lower back. he's the only who’d always love me despite understanding who i'm and what i have carried out.

I didn’t answered to Raphael’s gesture of drawing near. whilst the day at work changed into over I pressed the button of elevator to go out of the premises. I didn’t want to come across him. however he turned into all ready to not simplest come across me but to engross with me. He turned into already there inside the elevator. I tried to engage myself with the telephone. although there has been not anything in the phone I ought to do on the time. nonetheless I depicted my high-quality to tell him that my stint of day dreaming turned into over. That i used to be in serene country and no endeavor of his ought to pull me out. however his courage became there to carve a brand new idyll for me, changing the only that existed, that I created.

“Meera?” his smooth voice attacked my coronary heart. “Are you disappointed with me?”
“No. Why could I be disappointed with you? No, i'm right, i am now not disenchanted.”
“You’ve been fending off me for quite a time now.”
“No i am no longer. i'm simply busy in work. How’s Lissie?”-

He halted the elevator in among; his robust body came nearer. He regarded into my eyes and said-“i will.”
“What you may?” this all was bit dreading to me.
“solution on your question is–i can; in fact I do. i'm in love with you,” he stated. I remembered my question darn well-“It changed into lengthy ago Mr. Mehta i am don’t…”

“i will do the whole lot to make you satisfied. I want you to be glad with me. I want your love. I don’t want you to head. I want to spend every second of my life with you. I want to love you for whole of my life. I need you to live with me. i am no longer sure if I can be capable of pass on on this life without you. Or you may say I don’t need to go on on this lifestyles without you. you've got my soul Meera. My existence lies with you now. I lost in fight with my inner self. i'm bored with warding off the truth that you are like to me. My happiness is you. I need you to stay with me for I can't stay without you. We need just one peaceful person to live life. Peace is what I are seeking for. Peace is what you're to me. What a lifestyles would that be with out your love; with out the desires of  Godly heads. I can be mad with out you. would you now not rain your kindness on me, my Goddess?”-he held my top fingers and my again touched wall of the elevator.

I have to have untangled myself. however coronary heart filled with Love; eyes that had been telling identical affection seized me. I stayed there for I didn’t desire him to trickle a unmarried tear. If he might have shed a drop my soul could have damaged. I had never harm a single sentient in my complete life. So how on earth I may want to have hurt the being reason of whom I celebrated celestial emotions called Love.

“should you just live right here for now,” my palm touched his right cheek. I appeared deep into his eyes gauging truthfulness. We settled down at the ground and for terribly long time I looked at him. Then slowly I placed my right head’s forehead on his forehead. I don’t take into account for how long I stayed melted in that airy warm temperature. protected within the fingers of one I known as my God of love.

I cherished God. I nevertheless do and we need to not entangle ourselves with attachments. however then God also tells us to like his humans or there’s no point of Loving him. If we can not forgive and love his human beings. Now there has been no ecstatic left in love for him. i used to be serene and it didn’t count number to me now if he connects with my lifestyles or now not. For i used to be sanctified with the emotions of love. despite the fact that I familiar his Love for I had said that ‘never destroy the coronary heart that loves you’.

stay satisfied ever after become fated for me and that i should by no means do to him what he did to me. besides how can i deny a man as true as him for life. actual guys don’t just sing cajolery for his or her women. They hold them by using right; they provide them rights. Wherefore Raphael, the well-bred, gallantly proposed before all of the eyes of station. All eyes glinted for our Love except for one pair.

Derren Mehta who usually favored me as his daughter hesitated in having me as his daughter in law. however sturdy eddy of love swiped his willies reason Raphael discovered same truthfulness of affection that became shown to me. whereby he sanctioned our bond and felt happy for his son. We got married in church no longer due to the fact Raphael became darn follower of faith however I wanted to wear beautiful white dress on my wedding. Few fellow tipplers from the bar who concept me as ‘most effective precise to sleep with’ additionally attended our wedding ceremony. They witnessed how i was tons extra than that. They noticed Raphael kissed lips of both of my faces and no… I didn’t cry. Its him… he cried on our wedding. The Hesperian debonair cried in my love. Oh my God i love my Love story.

–END–

By
Ritu Bajaj
Share:

Easy and Best Ways Speed Up Your Computer

You may comprehend what it feels like to have a fresh out of the box new computer. One that is fit as a fiddle and appears to blast through even the hardest of difficulties. In any case, that crisp computer feeling blurs, and now and again rapidly.

Documents and organizers take more time to open, programs don't close down as fast as you'd trust, deferred logins and new businesses appear to be a day by day event, and you can't whip around like you used to.

In addition, is that occasionally particular projects are at fault, making it hard to know where to start to tidy things up.

Luckily, there are things you can do to accelerate your computer to make it appear to be new once more. Before we investigate how to make an expedient computer once more, how about we initially look at why the computer is moderate in any case.

Why Is My Computer Slow Anyway?

After some time, as you download documents, peruse the web, expel programs, leave applications open, and do essentially whatever else on your computer, it gradually gathers garbage and causes in the background issues that aren't generally so natural to get at first.

Record fracture is a huge guilty party. So is the aggregation of reserved web program records, a jumbled desktop, a full hard drive, moderate equipment, filthy equipment, and numerous different things.

Be that as it may, your computer itself may really not be moderate. You may simply be encountering an ease back web association because of a defective switch, an awful association, or restricted speed offered by your ISP.

Regardless, you may simply need to accelerate your web get to.

Note: These means are expected to be utilized as a part of generally an indistinguishable request from they show up. The thought is to do the most straightforward and slightest intrusive thing first until the point that your framework begins reacting better. At that point, you can do the same number of alternate assignments as you wish to have a go at crushing as tremendously speed out of your computer as you can.

Tidy Up Junk Files and Programs

Utilize a free framework cleaner like CCleaner to eradicate pointless garbage documents in the Windows OS itself, the Windows Registry, and outsider projects like your web programs, which get a kick out of the chance to gather reserve records.

In the event that these brief web records and different futile things stick around for a really long time, they can not just aim projects to hang and end up plainly inert and lazy, yet in addition take up significant hard drive space.

Tidy up your desktop if it's jumbled. Making Windows Explorer stack those symbols and envelopes each time the desktop invigorates can put superfluous load on your equipment, which takes away framework assets that could be utilized somewhere else.

Evacuate undesirable projects that are simply waiting on your computer. These are taking up hard drive space as well as they may open naturally with Windows and be running out of sight constantly, sucking without end at the processor and memory. There are a few free uninstaller instruments that make this truly simple.

Likewise considered garbage records is anything you basically don't utilize or need any longer. In this way, erase those old video records that you downloaded a year prior and go down every one of the information you don't promptly utilize, similar to relax pictures.

Once your computer is free from superfluous transitory and garbage documents, you ought to have all the more free hard drive space accessible for different things that are critical. The bigger free space on the hard drive additionally assists with execution in light of the fact that the drive limit isn't continually being pushed as far as possible.

Defrag Your Hard Drive

To defrag your hard drive is to unite all the unfilled spaces that are made in the document framework structure as you include and evacuate records. These unfilled spaces make your hard drive take more time to think, which thus causes documents, envelopes, and projects to open gradually.

There are a lot of free defrag instruments you can download to do this yet another choice is to utilize the one inherent to Windows.

Expel Viruses, Malware, Spyware, Adware, and so on.

Each Windows computer is helpless against malware yet there's little reason it ought to ever get tainted in the event that you consistently utilize hostile to malware programs.

Once the infection is on the computer, it for the most part stores itself in the framework memory, hoarding assets that could be utilized by real projects, in this manner backing everything off. Some noxious projects demonstrate pop-ups or deceive you into purchasing their "antivirus program," which are considerably more motivations to expel them.

You ought to occasionally examine your computer for malware to dispose of these bothersome memory pigs.

Fix Windows System Errors 

Installing and uninstalling programming and Windows refreshes, rebooting your computer amid a refresh, driving your computer to close down promptly, and different things can cause blunders inside the Windows framework records.

These mistakes can make things bolt up, end program installs and refreshes, and just by and large keep the experience of a smooth computer.

Perceive How to Use SFC/Scannow to Repair Windows System Files to settle any blunders that may be backing off your computer.

Change Visual Effects

Windows gives various intriguing visual impacts including vivified windows and blurring menus. These are fine to have turned on yet just on the off chance that you have enough memory.

You can kill these visual impacts to speed things up a bit.

Clean, Replace or Upgrade Your Hardware 

Despite the fact that product is the reason for some moderate computers, you can just get so far before you have to address the equipment segments.

For instance, if your computer doesn't let you open more than a few projects immediately, or doesn't give you a chance to watch HD films, you might just have a little measure of RAM or a broken/obsolete video card or other part. Or, on the other hand, you may simply have filthy equipment.

It's insightful to occasionally clean your physical equipment parts. After some time, and due particularly to certain natural impacts, fans and different pieces under the case can assemble clusters of soil or hair, which makes them work in overdrive just to work typically. Tidy up everything before you purchase new equipment - it's conceivable that they're recently excessively grimy.

You can utilize a free framework data utility to see the specs of your equipment. These apparatuses are useful in case you're anticipating supplanting equipment with the goal that you don't need to open your computer just to keep an eye on things.

For instance, on the off chance that you need to have 4 GB of RAM, you can utilize a framework data apparatus to affirm that you just have 2 GB (and what kind you have) so you can purchase more.

Reinstall the Entire Windows Operating System 

The most extraordinary answer for accelerating your computer is to erase all the product and documents, evacuate the entire Windows OS, and begin without any preparation. You can do this with a clean install of Windows.

The colossal thing about doing this is you basically have another computer, free of year of programming and registry changes and mistakes that you don't know you had. Nonetheless, you should ponder doing this since it's irreversible and is one of the last choices you can make to accelerate your computer.

Imperative: Reinstalling Windows is a changeless arrangement, so make a point to go down your documents and record any projects you need to make a point to reinstall.
Share:

July 25, 2017

কিভাবে প্রেম করবেন? কেন প্রেম করবেন ?

মানুষের জীবনে প্রেমের অবদান
কতখানি তা বলে দেয়া মুশকিল।
তবে এটা বলা যায় কেউ তার জীবন
চিন্তা করতে পারেন না প্রেম
ছাড়া। প্রেমের বিস্তর উদাহরণ
আছে, লাইলি মজনু, শিরি ফরহাদ
এসব আদি যুগের প্রেম। কয়েকযুগ
আগের প্রেম বলতে চিঠি পত্র
কিংবা সিনেমায় দেখা কালজয়ী
প্রেম বেঁদের মেয়ে জ্যোৎস্না
এসব। আরো কিছু আছে যা এই
মুহুর্তে মনে পড়ছে না।তবে
“কিভাবে প্রেম করবেন” তা নিয়ে
আগ্রহ জন্মাতে পারে যে কোন
সময়েই।
চলে আসি আধুনিক যুগের এই ২০১৫
সালের প্রেম পরিস্থিতিতে।
পুরনো দিনের ভাল মন্দ আজ আবার
নতুন দিনে ঠিক কী রূপ নিয়েছে
তা জানা আছে সকলের-ই। তবু আজ
প্রেম যে কেমন অস্বাভাবিক রূপ
পেয়েছে তা বিজ্ঞরাই ভাল বলতে
পারেন। আমি শুধু বলতে পারি
স্বাভাবিক ভাবে একজন তরুণ একজন
তরুণীর সাথে কিভাবে প্রেম
করবেন – এই বিষয়ে।
কিভাবে প্রেম করবেন?
প্রেম এমন এক বিশাল
ব্যপার যেটা
টেকনোলজি দিয়ে করে
ফেলা যায় না। কোন
দিন কোন একটি
টেকনিক কাজ করলেও
অন্যদিন তা নাও করতে
পারে। তবে ভাল
প্ল্যান আর পরিশ্রম
করলে এই বিষয়ে
কিছুটা সহজ হয়।
প্রেম কি করতেই হবে?
এই প্রশ্ন জরুরী। আপনি প্রেম কেন
করবেন? প্রেম না করে আপনার
চলে কি না সেটা দেখতে হবে।
যদি ব্যক্তি জীবনে প্রচণ্ড অস্থির
লাগে তবে প্রেম করাই ভাল,
কিন্তু দেখবেন যদি আপনি ভাল
কিছু কাজে সময় ব্যয় করতে চান,
তবে ওসবে গা না ভাসালেও
চলবে। তবে প্রেম করে লাভ যেমন
ক্ষতিও তেমনি। বুঝে শুনে প্রেম
করুন । ক্ষতির দিকটা ভাবুন।
ভেবে বের করুন আপনার ভাল
লাগে কাকে?
প্রেম করার জন্য ভাল লাগাটা
জরুরী। কাকে ভাল লাগে? সে কে?
যে কোন মানুষের আশে পাশে
অনেক মানুষ থাকে। আত্মীয় বন্ধু
বান্ধব এছাড়াও কলেজে জুনিয়র
সিনিয়র কত মানুষ। এর মধ্যে কে
একজন অবশ্যই আছে যাকে অন্য
সবার কাছ থেকে ভিন্ন মনে হয়।
খুঁজে বের করতে হবে কে সে? যদি
এমন হয় যে যাকে ভাল লাগছে সে
আরো একজনের সাথে প্রেম করেই
যাচ্ছে তাহলে এখানেই শেষ করে
ফেলা উচিত।
পছন্দের কারন বের করুন-
যার সাথে প্রেম করবেন বলে ঠিক
করে ফেলেছেন তাকে কেন আপনি
পছন্দ করলেন তার কারন বের করুন।
সে কেন আপনাকে এত আকর্ষন
করে? শারীরিক কাঠামো কিংবা
সৌন্দর্য? যদি শুধু তাই হয় তবে
আরেকবার ভাবুন এই প্রেমের
বাস্তবিকতা পুর্ন হবে কিনা। সে
কি জীবনে খাপ খেয়ে যাবে না
কি আরো বেশি যন্ত্রণাদায়ক
হবে।
তাকে ফলো করুন –
একজন মানুষকে জানার জন্য তার
সাথে কিছু সময় দিতে হয়। যদি
বোঝা যায় সে আপনাকে নয় অন্য
কোন কারণে খুব বেশি ব্যস্ত তবে
সিদ্ধান্ত বদলে ফেলুন। প্রেম
করবেন আর এই সুবিধাটা নিবেন
না? তাই খুব চিন্তা ভাবনা করে
বের করুন কিভাবে আপনি তার
সম্পর্কে বিস্তারিত জানবেন। না
জানলে পরে পস্তাবেন।
রেস্পেক্ট –
প্রেমের জন্য নয় জীবনের জন্যই
যদি কোন বন্ধুও দরকার হয় তবে মনে
রাখবেন যার সাথে সম্পর্ক হচ্ছে
সে আপনাকে রেস্পেক্ট করে কি
না। কিভাবে প্রেম করবেন তা
জানার আগেই জেনে নিন
কিভাবে বুঝবেন তিনি আপনাকে
রেস্পেক্ট করে কি-না ।
প্রস্তাবনা
প্রেম করার ক্ষেত্রে কাউকে না
কাউকে আগে এগিয়ে আসতে হয়।
দুজনেই যদি লজ্জা পেয়ে বসে
থাকেন তবে কোন দিন প্রেম হবেই
না। কেউ কেউ মনে করেন মেয়েরা
প্রস্তাব দিলে জাত যায়। আজকাল
অনেকই জাত পাত সবই হারাচ্ছেন
অযথাই। তাই মেয়েরা কিছুটা
টেকনিক অনুসরণ করে ছেলেদের
দিয়েই প্রস্তাব করাতে পারেন।
এক্ষেত্রে বেশি বেশি বন্ধুত্বপুর্ন
আচরণ কিংবা হেল্প কিংবা
ব্যক্তিগত বিষয়ে জানাশোনা।
এসব কিছুই হতে পারে হাত্যার।
তবে সাবধান। কখনো ছেলেদের
কঠিন চরম দাবি মানতে যাবেন
না। সতর্ক থাকুন এটা ২০১৫ সালে
কেউ অত বোকা নেই।
ছেলেরা অবশ্যই মেয়েদের আগে
থেকে প্রস্তাব দিতে পারেন।
কিন্তু মাথায় রাখবেন আজকাল
অনেক মেয়েই আন্ডারগ্রাউন্ড
কর্মী। তাই যত পারেন বাজিয়ে
নিন। প্রেম করুন কিন্তু না জেনে
একটুও এগোবেন না। আজকাল অনেক
ঘটনাই ঘটে যাচ্ছে টাকা আত্মসাৎ
সহ অনেক কিছু।
আজকাল বেশিরভাগ দেখা যায়
পরকীয়া হচ্ছে। ব্যপারটা খুব
বাড়াবাড়ি পর্যায়ের দিকে
এগিয়ে যাচ্ছে। বিশ্বাস আর
মূল্যবোধ কিছুই থাকছে না। তাই
এই বিষয়ে আরো সতর্ক থাকা
জরুরী।
Share:

July 21, 2017

দ্রুত মোটা হওয়ার ১০টি উপায়। দেখে নিন কিভাবে মোটা হবেন?

পৃথিবী জুড়ে যেখানে রোগা হওয়ার ধুম, সেখানে মোটা হওয়ার টিপস? খুব অবাক হচ্ছেন নিশ্চয়ই? আপনি অবাক হলেও, অনেকেই কিন্তু হবেন না। বরং এই ওজন বাড়াবার টিপস গুলো তাঁর জন্য এক রকম স্বস্তির নিঃশ্বাস বয়ে আনবে৷
শারীরিকভাবে ক্ষীণকায় ব্যক্তিদের কাছ থেকে প্রায়ই শোনা যায় কীভাবে যে মোটা হওয়া যায়, এত খাই কিন্তু মোটা হতে পারি না।
আপনাদের জন্য রইল ওজন বাড়ানোর ১০টি উপায়

১. সকালে উঠে বাদাম ও কিসমিস
ওজন বাড়ানোর জন্য বাদাম আর কিসমিসের বিকল্প নেই। রাতে ঘুমাবার সময় অল্প জলে আধ কাপ কাঠ বাদাম ও কিসমিস ভিজিয়ে রাখুন ৷সকালে সেগুলো ফুলে উঠলে খেয়ে নিন।

২. খান প্রচুর শাক সবজি ও ফল
ভাবছেন এগুলো তো ওজন কমাবার জন্য খাওয়া হয়, তাই না? ওজন বাড়াতেও কিন্তু আপনাকে সাহায্য করবে এই ফল আর সবজি। এমন অনেক ফল আর সবজি আছে যারা কিনা উচ্চ ক্যালোরি যুক্ত। আম, কাঁঠাল, লিচু, কলা, পাকা পেঁপে, মিষ্টি কুমড়া, মিষ্টি আলু, কাঁচা কলা ইত্যাদি ফল ও সবজি খেলে ওজন বাড়বে।
যদি এইসব না করেও আপনার ওজন না বৃদ্ধি পায়, তাহলে অবশ্যই একজন ভালো ডাক্তারের সাথে যোগাযোগ করুন। কেননা কোনও সুপ্ত অসুখ থাকলেও তার ফলে রুগ্ন ও ভগ্ন স্বাস্থ্যের অধিকারী হতে পারেন।

৩. খাবারের পরিমাণ বাড়ান
খাবারের পরিমাণ বাড়ানো মানেই একগাদা খেয়ে ফেলা নয়। আপনি যদি কম খাওয়ার কারণে রোগা হয়ে থাকেন, তাহলে খাবারের পরিমাণ আপনাকে বাড়াতেই হবে। স্বাভাবিকভাবে যা খেয়ে থাকেন, তার ৪ ভাগের ১ভাগ পরিমাণ খাবার বাড়িয়ে খান প্রতিদিন।

৪. বারবার খাওয়ার অভ্যাস ত্যাগ করুন
অনেকেই ভাবেন যে বারবার খেলে বুঝি ওজন বাড়বে। এটা মোটেও সঠিক না। বরং নিয়ম মেনে পেট পুরে খান। পেট পুরে খাওয়া হলে মেটাবলিজম হার কমে যায়, ফলে খাবারের ক্যালোরির অনেকটাই বাড়তি ওজন হয়ে শরীরে জমবে। অল্প অল্প করে বারবার খাওয়াটা মেটাবলিজম বাড়িয়ে দেয়, ফলে ওজন কমে।

৫. খাদ্য তালিকায় রাখুন ডুবো তেলে ভাজা খাবার
ডুবো তেলে ভাজা খাবারে প্রচুর পরিমাণে ফ্যাট থাকে। ফলে সেটা ওজন বাড়াতে সহায়ক। তবে সাথে রাখুন প্রচুর তাজা শাক সবজির স্যালাড।

৬. জিমে যাওয়া অভ্যাস করুন
ভাবছেন জিমে মানুষ যায় ওজন কমাতে, বাড়ানোর জন্য কেন যাবেন? কিন্তু আসল কথাটা হলো, কেবল মোটা হলেই হবে না। সাথে তৈরি করতে হবে সুগঠিত শরীর। আপনি জিমে যাবেন পেশী তৈরি করতে, এবং পুরুষেরা ওজন বাড়াতে চাইলে এই জিমে যাওয়া আসলে খুবই ফলদায়ক। পেশীর ওজন চর্বির চাইতে অনেক বেশী তো বটেই, তাছাড়া ব্যায়ামের ফলে খিদেও পাবে আর মন ভরে খেতে পারবেন। তবে অবশ্যই একজন অভিজ্ঞ ট্রেনারের নির্দেশে ব্যায়াম করতে হবে। নাহলে হিতে বিপরীত হবার আশঙ্কা।

৭. খান “ফ্যান” ভাত-
অধিকাংশ মানুষই ভাতের ফ্যান ফেলে দেয়৷ ফ্যান ফেলে দিয়ে ভাতের স্টার্চের অনেকটাই চলে যায় ফ্যানের সঙ্গে। ওজন বাড়াতে চাইলে ভাতের ফ্যান না ফেলাই ভালো। এর ফলে ভীষণ উপকার হবে ওজন বাড়াতে। আতপ চালের ফ্যান ভাত মজাও লাগবে খেতে।

৮. ঘুমাবার ঠিক আগেই দুধ ও মধু
ওজন বাড়াবার জন্য একটা একটা অব্যর্থ কৌশল। রাতের বেলা ঘুমাবার আগে অবশ্যই পুষ্টিকর কিছু খাবেন। ঘুমাবার আগে প্রতিদিন এক গ্লাস ঘন দুধের মাঝে বেশ অনেকটা মধু মিশিয়ে খেয়ে নেবেন।


৯. কমান মেটাবলিজম হার
মোটা হবার পেছনে যেমন ধীর গতির মেটাবলিজম দায়ী, তেমনি রুগ্ন স্বাস্থ্যের পেছনে দায়ী উচ্চ মেটাবলিজম হার। সুতরাং মোটা হতে গেলে প্রথমেই এই মেটাবলিজম হার কমাতে হবে। তাতে আপনি যে খাবারটা খাবেন, সেটা বাড়তি ওজন রূপে আপনার শরীরে জমার সুযোগ পাবে। মেটাবলিজম হার কম রাখার জন্য প্রতিবেলা খাবারের পর লম্বা সময় বিশ্রাম করুন। খাবার পর কমপক্ষে ১ ঘণ্টা কোনও কাজ করবেন না।

১০. খাদ্য তালিকায় যোগ করুন কিছু বিশেষ খাবার
আপনার নিয়মিত খাবারের পাশাপাশি অবশ্যই কিছু উচ্চ ক্যালোরি সম্পন্ন খাবার যোগ করতে হবে খাদ্য তালিকায়, নাহলে ওজন বাড়বে কেন? উচ্চ রক্তচাপের সমস্যা না থাকলে এই খাবার গুলো খেতে পারেন অনায়াসে। যেমন- ঘি/ মাখন, ডিম, চিজ/ পনির, কোমল পানীয়, গরু-খাসির মাংস, আলু ভাজা, মিষ্টি জাতীয় খাবার, চকলেট, মেয়নিজ ইত্যাদি।
এরপরেও যদি ওজন না বাড়ে তাহলে চিকিৎকের সাহায্যে শরীর পরীক্ষা করে যদি কোনো রোগ পাওয়া যায়, তার চিকিত্সা করাতে হবে। পেটের অসুখ, কৃমি, আমাশয় অথবা কোনো সংক্রামক রোগ থাকলে পর্যাপ্ত খাদ্য গ্রহণ করলেও ওজন কমে যেতে থাকে। অতিরিক্ত ক্লান্ত থাকলেও ক্রমাগত ওজন কমে যেতে থাকে। এমন হলে বিশ্রাম, নিদ্রা ইত্যাদি বাড়িয়ে রোগীকে স্বাভাবিক অবস্থায় নিয়ে আসতে হবে।
Share:

স্মার্টফোনে আসক্ত হলে যেসব সমস্যা হতে পারে।

মাত্রাতিরিক্ত স্মার্টফোন বা ট্যাব ব্যবহার করছেন? চাপ পড়ছে বুড়ো আঙুলে? সেদিকে নজর নেই আপনার! এবার কিন্তু নজর ফেরাতেই হবে, নয়তো অকেজো হয়ে যেতে পারে আপনার বুড়ো আঙুল; এমনকি হাতও।

অনেকেই কব্জিতে ব্যথা অনুভব করেন। আবার মাঝে মাঝেই তা হয়ে যায় অসহ্য যন্ত্রণার। টাচ স্ক্রিনে আপনার হাতের অতি ব্যবহার, সাথে অত্যধিক মেসেজিং থেকে এই রোগের উৎপত্তি।

স্পেনের একটি সাম্প্রতিক গবেষণা বলছে, যারা ১৩০ গ্রামের মোবাইল ফোনে দিনে প্রায় ৬ ঘণ্টা মেসেজিং, হোয়াটসঅ্যাপ বা মেসেঞ্জার ব্যবহার করেন, তাদের কব্জিতে অনবরত ব্যথা হতে পারে। এটাকেই বলে ‘হোয়াটসঅ্যাপাইটিস’ যা ধীরে ধীরে ‘কারপাল টানেল সিনড্রোমে’ পরিণত হয়।
এর ফলে সাধারণত কব্জি-সন্ধিতে ব্যথা বা অস্বস্তি বোধ হয়। এছাড়া বেশি সময় কাজ করতে না পারা, হাতের পেশিতে ব্যথা ছড়িয়ে যাওয়া, হাত অসাড় মনে হওয়া ইত্যাদি উপসর্গ দেখা দেয়। পাশাপাশি রাতে ব্যথা বাড়া, হাত শক্ত হয়ে যাওয়া, হাতে শক্তি না পাওয়া- এসবও দেখা যায়।
নার্ভ আক্রান্ত হওয়ার ফলে হাতের আঙুল, কব্জিতে মারাত্মক প্রভাব পড়ে। হোয়াটসঅ্যাপ বা মেসেঞ্জার ব্যবহার করার জন্য ক্রমাগত আঙুল নাড়ানো বন্ধ না করলে অকেজো হয়ে যেতে পারে হাতের বুড়ো আঙুল।
আবার, যার যে হাতটি বেশি চলে, সেই হাতের আঙুলের রং গোলাপি হয়ে যেতে পারে। অস্ট্রেলিয়ার সাম্প্রতিক একটি গবেষণা বলছে, স্মার্টফোনের ওজনের ওপর নির্ভর করে হাতের আঙুলের অবস্থা।
তারা বলছেন, দিন দিন স্মার্টফোনের আকার বাড়ছে। ফলে বুড়ো আঙুলকে অনেক বেশি দূরত্ব অতিক্রম করতে হচ্ছে মেসেজ করার সময়। এতে বুড়ো আঙুল ও তর্জনীর ওপর বেশি চাপ পড়ছে।
আর এভাবে ব্যথা বাড়ার সঙ্গে সঙ্গে ধীরে ধীরে অকেজো হয়ে যেতে পারে হাত।
Share:

July 20, 2017

ইংরেজিতে কথা বলার কয়েকটি উপায়।

ব্যস্ততার কারণে অনেক সময়েই আমরা সামনের মানুষটিকে অপেক্ষা করতে বলে থাকি। ইংরেজিতে সচরাচর ‘Wait for me.’ (ওয়েট ফর মি/আমার জন্যে অপেক্ষা করুন)-এর মতো সাধারণ বাক্য দিয়ে কাউকে অপেক্ষা করতে বলা হয়ে থাকে। আমাদের আজকের আয়োজনে আমরা জেনে নেব একটু ভিন্নভাবে কাউকে অপেক্ষা করতে বলার পাঁচটি উপায়।

১) Hang on a moment. (হ্যাং অন আ মোমেন্ট/একটু অপেক্ষা করুন)
Advertisement
অল্প সময়ের জন্য কাউকে অপেক্ষা করতে হলে তাকে নম্র স্বরে বলুন, ‘Hang on a moment.’ অথবা ‘Hold on!’ (হোল্ড অন)
২) I will be right with you. (আই উইল বি রাইট উইথ ইউ/আমি কিছুক্ষণের মাঝেই আপনার কাছে ফিরে আসছি)
সাধারণত কলসেন্টারগুলোয় গ্রাহকদের অপেক্ষা করতে বলার জন্যে অনুরোধ করতে বলা হয়, ‘I will be right with you, sir/madam.’
৩) Bare with me. (বেয়ার উইথ মি/আমার সঙ্গেই থাকুন বা অপেক্ষা করুন)
বেশি সময় ধরে অপেক্ষা করার প্রয়োজন হলে এটি ব্যবহার করা হয়। ধরুন, আপনি টাইপিং-এর কাজ করছেন এবং কাজটি শেষ করতে আপনার আরো সময় প্রয়োজন। এই সময়ে টাইপিং-এর জন্য কেউ তাগাদা দিলে তাকে বলুন, ‘This will take some time. Bare with me. (দিস উইল টেক সাম টাইম। বেয়ার উইথ মি)’ অর্থাৎ, কাজটি শেষ হতে আরো সময় লাগবে। অপেক্ষা করুন।
৪) Let me see. (লেট মি সি/আমাকে একটু সময় দিন)
হুট করে কারো প্রশ্নের জবাব মাথায় না এলে বা কাউকে কোনো তথ্য দেওয়ার জন্য একটু চিন্তা করার সময়ের প্রয়োজন হলে তাকে কায়দা করে বলুন, ‘Let me see.’ এবং তারপরে প্রয়োজনীয় সময় নিয়ে চিন্তা করে, গুছিয়ে সামনের ব্যক্তিকে আপনার উত্তরটি দিন।
৫) All in good time. (অল ইন গুড টাইম/আরো কিছু সময়ের প্রয়োজন)
ধরুন আপনি রাতের খাবার রান্না করছেন এবং আপনার রান্না শেষ করতে আরো সময়ের প্রয়োজন। এই ক্ষেত্রে কেউ যদি জানতে চায় রাতের খাবার কখন পরিবেশন করা হবে তখন গুছিয়ে বলুন, ‘The dinner will be served all in good time. (দ্য ডিনার উইল বি সারভড অল ইন গুড টাইম)’ অর্থাৎ, রাতের খাবার পরিবেশনে আরো কিছু সময়ের প্রয়োজন।
এবার আসা যাক আপনার জন্য অপেক্ষা করে থাকা ব্যক্তিকে অপেক্ষার মতো ধৈর্যশীল কাজটি করার জন্য ইংরেজিতে কীভাবে তাকে ধন্যবাদ জানাবেন সেই প্রসঙ্গে। আপনি তিনটি ভিন্ন উপায়ে ধন্যবাদ দিতে পারেন।

১) I apologize for the delay. (আই এপোলোজাইজ ফর দ্য ডিলে/আমি দেরি করার জন্য ক্ষমাপ্রার্থী)
কোনো সাক্ষাতে নির্দিষ্ট সময়ের থেকে দেরিতে পৌঁছালে তার জন্য ক্ষমা চেয়ে বলুন, ‘I apologize for the delay’ এবং একই সঙ্গে অপেক্ষা করে থাকার জন্যে তাকে ধন্যবাদ জানাতে আগের বাক্যটির সঙ্গে জুড়ে দিন ‘Thank you for waiting. (থ্যাংক ইউ ফর ওয়েটিং)’ অর্থাৎ, অপেক্ষা করার জন্য আপনাকে ধন্যবাদ।
২) Thank you so much for waiting. (থ্যাংক ইউ সো মাচ ফর ওয়েটিং/অপেক্ষা করার জন্যে আপনাকে ধন্যবাদ)
অপেক্ষারত ব্যক্তিকে ধন্যবাদ জানাতে আপনি বলতে পারেন, ‘Thank you so much for waiting.’
৩) Sorry to keep you waiting. (স্যরি টু কিপ ইউ ওয়েটিং/আপনাকে অপেক্ষা করিয়ে রাখার জন্য দুঃখিত)
অনেকক্ষণ ধরে কাউকে অপেক্ষা করিয়ে রাখলে তাকে বলুন, ‘Sorry to keep you waiting for so long. Thank you for waiting.(স্যরি টু কিপ ইউ ওয়েটিং ফর সো লং।
থ্যাংক ইউ ফর ওয়েটিং/আপনাকে এতক্ষণ ধরে অপেক্ষা করিয়ে রাখার জন্য আমি দুঃখিত। আপনাকে অপেক্ষা করার জন্য ধন্যবাদ।)’
পরেরবার ইংরেজিতে কাউকে অপেক্ষা করতে অনুরোধ করার জন্য ইংরেজিতে এই উপায়গুলোর সাহায্য নিন এবং বিষয়গুলো আরো চর্চা করুন।
Share:

July 8, 2017

কমেন্টে লিংক দিয়ে বেবি চেক, প্রেমিকার ধরন চেক, ভবিষ্যৎ চেক এগুলো করলে কি আপনার ফেসবুক একাউন্টের কোন ক্ষতি হয়?

হুম! অবশ্যই হয়। মূলত এইরকম আরো কয়েকটা বোকামির কারনে লক্ষ লক্ষ ফেসবুক ইউজার নিজের একাউন্ট/আইডি হারায়।

আপনি লক্ষ করলেই দেখতে পাবেন আপনি যখন এসব লিংক দিয়ে কমেন্ট করছেন তখন মাঝে মধ্যেই ফেসবুকে আপনাকে যাচাই করার জন্য Captcha পূরন করতে দেয়। অথ্যাৎ তারা আপনাকে স্পামার মনে করতেছে।

এইরকম দু-একবার যাচাই করে পরবর্তীতে আপনার একাউন্ট ভেরিফিকেশন (Photo Verification, Number Verification, ID Card Verification) এ ফেলবে। তাহলে আপনাকে অনেক দুর্ভোগে পরতে হবে।

এছাড়া এসব লিংকগুলোর মাধ্যমে হ্যাকাররা ফিশিং সাইট বানিয়ে আপনার অজান্তেই আপনার আইডি হ্যাক করে পেলতে পারে।
তাই একটু মজা করার জন্য এইগুলো করা ঠিক হচ্ছে কিনা একবার ভেবে দেখবেন........#Fi
Share:

June 27, 2017

কিভাবে Quality ঠিক রেখে কোন রকম সফটওয়ার ছাড়াই ভিডিও এর সাইজ কমাবেন? ইউটিউবার দের জন্য হট টিউন।

আসসালামু আলাইকুম। বন্ধুরা আশা করি সবাই ভাল আছেন। আজ আপনাদের জন্য নিয়ে আসলাম অস্থির একটা টিপস।
আপনারা অনেকেই ইউটিউব এর জন্য ভিডিও ইডিট করে থাকেন। কিন্তু দেখা যায় অল্প একটু ইডিট করলেই ভিডিও এর সাইজ ৫গুন বেড়ে যায়, ফলে ওয়াইফাই বা দ্রুতগতির ইন্টারনেট দিয়ে আপলোডের প্রয়োজন হয়। তাছাড়া আপলোড করতে অনেক সময় লাগে।
এইজন্য আপনারা ইডিট করে যখন এক্সপোর্ট করবেন তখন Format থেকে Custom (বিভিন্ন Video Editor এ বিভিন্ন রকম হয়। তবে Video  bitrate সব ইডিটরেই থাকবে) সিলেক্ট করে Video এর bitrate "1200" kbps করে দিবেন। এটি সাধারণত ২৪০০ বা ৪৮,০০০ থাকে।

ইউটিউবে ডিফল্ট ভাবে ১২০০পর্যন্ত bitrate সাপোর্ট করে। আপনি যখন ইউটিউব থেকে ভিডিও ডাউনলোড করেন তখনো bitrate ১২০০থাকে। সো এটা অযথা বাড়িয়ে লাভ নাই।

তবে মনে রাখবেন Audio তেও কিন্তু bitrate থাকে সেটা 64kbps, 92kbps, 128kbps, 192kbps অথবা 320kbps হয়ে থাকে, Audio এর bitrate বাড়িয়ে দিতে পারেন। এতে কোন সমস্যা হবে না। তবে Video এর bitrate টা কমিয়ে ১২০০করে দিবেন।

তারপর ভিডিও এক্সপোর্ট করেন। আর দেখবেন সাইজ একদমই কম। এতে 720p কোয়ালিটির 5 মিনিটের একটা ভিডিওর সাইজ প্রায় 120mb হয়। যেখানে bitrate 24,000kbps হলে ৩০০mb এর অধিক হবে।
Share:
Copyright © Fibd - Tips & Trick Sharing BD | Powered by Blogger Design by ronangelo | Blogger Theme by NewBloggerThemes.com|Distributed By Blogger Templates20